রাজ্যে করোনার বিধি নিষেধ বাড়ল আরও 15 দিনের জন্যে - আজ খবর । দেখছি যা লিখছি তাই । ডিজিটাল মিডিয়ায় অন্যতম শক্তিশালী সংবাদ মাধ্যম

Sonar Tori


রাজ্যে করোনার বিধি নিষেধ বাড়ল আরও 15 দিনের জন্যে

Share This

রাজ্যে করোনার বিধি নিষেধ বাড়ল আরও 15 দিনের জন্যে


আজ খবর (বাংলা), কলকাতা, পশ্চিমবঙ্গ, 12/08/2021 : করোনা আবহে রাজ্যে বিধি নিষেধের মেয়াদ আরও 15 দিনের জন্যে বাড়িয়ে দেওয়া হল। সেই সঙ্গে আরও কিছু ক্ষেত্রে ছাড় দেওয়ার কথা আজ নবান্নে সাংবাদিক বৈঠকে জানালেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা ব্যানার্জি ।

এর আগে রাজ্যে 15 ই অগষ্ট পর্যন্ত বিধি নিষেধ জারি করেছিল রাজ্য সরকার। আজ সেই বিধি নিষেধের মেয়াদ আরও 15 দিন বাড়িয়ে অগষ্ট মাসের শেষ দিন পর্যন্ত করে দেওয়া হল। মুখ্যমন্ত্রী এদিন জানান, রাজ্যে করোনার প্রকোপ অনেকটাই কমানো গেলেও এখনো সংক্রমণ ঠেকানো সম্ভব হয় নি। তাই আরও কিছুদিন আমাদের সাবধানে থাকতেই হবে। 

এতদিন রাত্রি 9টা থেকে পরদিন ভোর 5টা পর্যন্ত নাইট কার্ফু জারি থাকত রাজ্যে। এবার থেকে মানুষের চাহিদা মেনে নিয়ে সেই নাইট কার্ফু রাত্রি 11টা থেকে ভোর 5টা পর্যন্ত জারি করা থাকবে।

মুখ্যমন্ত্রী মমতা ব্যানার্জি এদিন বলেন, "দীর্ঘদিন ধরে শহরতলির লোকাল ট্রেন বন্ধ রয়েছে। এতে মানুষের খুব অসুবিধা হচ্ছে আমি জানি। কিন্তু জীবনের থেকে আর কিছুই বেশি দামী হতে পারে না। আগামী সেপ্টেম্বর মাসে করোনার তৃতীয় ঢেউ আসতে চলেছে বলে আমরা জানতে পেরেছি। এই তৃতীয় ঢেউ শিশুদের আক্রমণ করতে পারে বলে জানতে পারছি। আমাদের রাজ্যে গ্রামাঞ্চলে 50% প্রতিষেধক দেওয়ার কাজ আমরা সম্পন্ন করতে পারি নি ভ্যাকসিন কম পাওয়ার জন্যে। তাই মানুষের অসুবিধা হচ্ছে জেনেও আমরা এখনই লোকাল ট্রেন চালু করতে পারছি না।" মুখ্যমন্ত্রী বলেন, "যাতায়াত করার জন্যে রাজ্যে দূরপাল্লার ট্রেন, বাস, মেট্রো, অটো, টোটো ও অন্যান্য প্রাইভেট গাড়ি চালু আছে। কিন্তু সংক্রমণের আশঙ্কাতেই শহরতলির লোকাল ট্রেন চালু করা যাচ্ছে না।" অর্থাৎ অগষ্ট মাসে আর লোকাল ট্রেন চালু হচ্ছে না। সেপ্টেম্বর মাসে করোনার তৃতীয় ঢেউ কতটা প্রভাব ফেলে সেটা দেখে নিয়েই রাজ্য সরকার লোকাল ট্রেনের ব্যাপারে সিদ্ধান্ত নিতে চাইছে।

রাজ্য সরকার নতুন লক্ষীর ভাণ্ডার প্রকল্প নিয়ে আসছে। এই প্রকল্পে বাড়ির মহিলারা মাসে 500 টাকা করে হাত খরচা পাবেন (এস সি / এস টি 1000 টাকা করে)। অবশ্য যাঁরা সরকারি চাকরি করেন, যাঁরা পেনশন পান বা যাঁরা প্রাইভেট কোম্পানিতে যথেষ্ট বেতন পান তাঁরা এই প্রকল্পের সুবিধা পাবেন না। সাধারন পরিবারের মহিলারা এই সুবিধা গ্রহণ করতে পারবেন। লক্ষীর প্রকল্পের জন্যে আলাদা শিবির করা হবে। বিনামূল্যে ফর্ম বিতরণ করা হবে। সেও ফর্ম ফিল আপ করতে হবে।

আগামী 16ই অগষ্ট থেকে 15ই সেপ্টেম্বর পর্যন্ত দুয়ারে সরকার প্রকল্পের শিবির করা হবে। এই শিবিরগুলিতে সরকারি বিভিন্ন প্রকল্পের ফর্ম পাওয়া যাবে। এছাড়া দুয়ারে রেশন প্রকল্প চালু হবে ভাই ফোঁটার দিন থেকে।

মুখ্যমন্ত্রী এদিন জানান করোনা আবহে রাজ্যে বিধি নিষেধ অনেকটাই শিথিল করে দেওয়া হয়েছে। বিভিন্ন প্রেক্ষাগৃহ, সিনেমা হল, থিয়েটার হল, সুইমিং পুলগুলিকে 50% ক্যাপাসিটি নিয়ে খোলার অনুমতি দেওয়া হয়েছে। 

গত 2রা অগষ্ট রাজ্যে যাবজ্জীবন সাজাপ্রাপ্ত (পুরুষ 70 বছরের উর্দ্ধে / মহিলা 65 বছরের উর্দ্ধে) বন্দীদের মুক্তি দেওয়ার সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছিল রাজ্য সরকারের তরফ থেকে। এঁদের মধ্যে 61 জন পুরুষ ও 2 জন মহিলা রয়েছেন। আজ রিভিউ কমিটি আরও 73 জনের নাম সুপারিশ করেছে, যাদের মধ্যে আছেন 66 জন পুরুষ এবং 7 জন মহিলা। এই বন্দীরা যাতে বাকি জীবন পরিবারের সাথেই কাটতে পারেন, সেই কারনেই এঁদের মুক্তি দেওয়ার ব্যাবস্থা করা হচ্ছে।

Loading...

Amazon

https://www.amazon.in/Redmi-8A-Dual-Blue-Storage/dp/B07WPVLKPW/ref=sr_1_1?crid=23HR3ULVWSF0N&dchild=1&keywords=mobile+under+10000&qid=1597050765&sprefix=mobile%2Caps%2C895&sr=8-1

Pages