আরও শক্তি বাড়াচ্ছে ইয়াস, বৃষ্টি শুরু আজ থেকেই - আজ খবর । দেখছি যা লিখছি তাই । ডিজিটাল মিডিয়ায় অন্যতম শক্তিশালী সংবাদ মাধ্যম

Sonar Tori


আরও শক্তি বাড়াচ্ছে ইয়াস, বৃষ্টি শুরু আজ থেকেই

Share This

  

আরও শক্তি বাড়াচ্ছে ইয়াস, বৃষ্টি শুরু আজ থেকেই
সমুদ্রের দিকে যেতে নিষেধ করছেন পুলিশ কর্মী 

আজ খবর (বাংলা), কলকাতা, পশ্চিমবঙ্গ, ২৫/০৫/২০২১ : ভারতীয় আবহাওয়া দপ্তরের জাতীয় আবহাওয়া পূর্বাভাস কেন্দ্র থেকে আজ সকাল ৯টার সময় পাওয়া তথ্য অনুযায়ী প্রবল ঘূর্ণিঝড় ‘ইয়াস’ পূর্ব মধ্য বঙ্গোপসাগরের ওপর অবস্থান করছে। 

সেটি এখন গত ৬ ঘণ্টা ধরে, প্রতি ঘণ্টায় ১০ কিলোমিটার গতি বেগে উত্তর-পশ্চিম দিকে এগিয়ে যাচ্ছে। আজ সকাল সাড়ে পাঁচটার সময় ঘূর্ণিঝড় ‘ইয়াস’ পারাদ্বীপের দক্ষিণ - দক্ষিণ পূর্বের ৩২০ কিলোমিটার, বালাসোরের দক্ষিণ - দক্ষিণ পূর্বের ৪৩০ কিলোমিটার, দীঘার দক্ষিণ – দক্ষিণ পূর্বের ৪২০ কিলোমিটার এবং বাংলাদেশের খেপুপাড়ার দক্ষিণ – দক্ষিণ পশ্চিমে ৪৭০ কিলোমিটার দূরে অবস্থান করেছে। এই মুহূর্তে পারাদ্বীপ থেকে ২৭০ কিলোমিটার দূরে অবস্থান করছে ঘূর্ণিঝড় ইয়াস।

আগামী ১২ ঘণ্টায় এটি অতি প্রবল ঘূর্ণিঝড়ের রূপ নেবে এবং ক্রমশই উত্তর-উত্তর-পশ্চিম দিকে অগ্রসর হবে। ২৬ মে বুধবার ভোর বেলায় উত্তর পশ্চিম বঙ্গোপসাগরের কাছে ওড়িশা এবং পশ্চিমবঙ্গের উপকূলবর্তী চাঁদবালি-ধামরা বন্দরে পৌঁছবে। ওই দিনই দুপুর বেলায় অতি প্রবল ঘূর্ণিঝড় ‘ইয়াস’ ওড়িশা – পশ্চিমবঙ্গের উপকূলের মধ্যবর্তী পারাদ্বীপ এবং সাগরদ্বীপ সংলগ্ন বালাসোরের ওপর দিয়ে বয়ে যাবে।

এর জেরে আজ থেকেই পশ্চিমবঙ্গের মেদিনীপুর, দক্ষিণ ২৪ পরগণায় ভারী বৃষ্টিপাত হবে। হাওড়া, হুগলি, উত্তর ২৪ পরগণাতেও আজ বৃষ্টির সম্ভাবনা রয়েছে। এমনকি ঝাড়গ্রাম, পুরুলিয়া, বাঁকুড়া, বর্ধমান, কলকাতা, বীরভূম, নদীয়া, মুর্শিদাবাদ, দার্জিলিং জেলায় আগামীকাল ভারী থেকে অতি ভারীর বৃষ্টির সম্ভাবনা রয়েছে।

আজ থেকেই বঙ্গোপসাগরের উপকূলবর্তী রাজ্যের জেলাগুলিতে প্রতি ঘণ্টায় ৯০ থেকে ১০০ কিলোমিটার বেগে ঝোড়ো হাওয়া বইতে পারে। আগামীকাল এই ঝড়ের গতিবেগ আরও বাড়বে। ঘূর্ণিঝড় ‘ইয়াস’ প্রতি ঘণ্টায় ১৫৫-১৬৫ থেকে ১৭৫ কিলোমিটার বেগে আছড়ে পড়বে। গাঙ্গেয় পশ্চিমবঙ্গে আগামীকাল ও বৃহস্পতিবার ঝোড়ো হাওয়া বইতে পারে।

বঙ্গোপসগারের পূর্ব মধ্য সংলগ্ন এবং পশ্চিম মধ্য ভাগে সমুদ্রে বড় বড় ঢেউ উঠবে। অন্ধ্র, ওড়িশা ও পশ্চিমবঙ্গের উপকূল অঞ্চলে সমুদ্র উত্তাল থাকবে। মৎস্যজীবীদের গভীর সমুদ্রে যেতে নিষেধ করা হয়েছে। যারা পূর্ব মধ্য এবং সংলগ্ন উত্তর পূর্ব বঙ্গোপসাগরের গভীর সমুদ্রে মাছ ধরতে গেছেন তাদের দ্রুত উপকূলে ফিরে আসতে বলা হয়েছে।

ঘূর্ণিঝড় ‘ইয়াস’-এর জেরে উত্তর ওড়িশা, পশ্চিমবঙ্গের উপকূলবর্তী সংলগ্ন জেলাগুলিতে বেশ কিছু ক্ষয়ক্ষতির আশঙ্কা করা হচ্ছে। ঘূর্ণিঝড়ের জেরে বেশ কিছু কাঁচা বাড়ি ভেঙে যেতে পারে, ক্ষতি হতে পারে পাকা বাড়িরও। বিদ্যুৎ সংযোগের খুঁটি উপড়ে পড়তে পারে। বেশ কিছু জায়গায় বন্যার জল ঢুকে যাতে পারে। রেল যোগাযোগে ব্যাঘাত ঘটতে পারে। এমনকি সিগনালিং ব্যবস্থাও খারাপ হতে পারে। আম গাছের মতো বড়ো গাছের ডালও ভেঙে পড়তে পারে। ঘূর্ণিঝড়ের জেরে দৃশ্যমানতা কমে আসবে।

তাই ঘূর্ণিঝড়ের হাত থেকে সাধারণ মানুষের জীবন রক্ষার্থে আগে থেকেই উত্তর ওড়িশা এবং পশ্চিমবঙ্গের উপকূলবর্তী জেলাগুলিতে সাধারণ মানুষকে নিরাপদ দূরত্বে সরিয়ে নিয়ে যাওয়া হয়েছে। মৎস্যজীবীদের মাছ ধরার নৌকায় না থাকতে বলা হয়েছে। এমনকি উপকূলে মাঝ ধরার নৌকা নোঙর করার সময় শক্ত করে বেধে রাখতে বলা হয়েছে। উপকূল অঞ্চলে সবরকম পর্যটনের গতি বিধি নিষেধ করা হয়েছে। সম্ভাব্য ক্ষতিগ্রস্ত এলাকার মানুষদের ঘরের ভেতরেই থাকতে পরামর্শ দেওয়া হয়েছে।

আগামীকাল ২৬ তারিখে ঘূর্ণিঝড় ইয়াস যেমন স্থলভাগে আছড়ে পড়তে চলেছে, তেমনই  আগামীকাল রয়েছে চন্দ্রগ্রহণ। ভারতের কিছু কিছু অংশ থেকে যা দেখতে পাওয়া গেলেও বেশিরভাগ জায়গা থেকেই দেখতে পাওয়া যাবে না।  সন্ধ্যে হওয়ার আগেই শেষ হয়ে যাবে চন্দ্র গ্রহণ। সেই সঙ্গে আগামীকাল থাকছে ভরা কোটাল। পাশাপাশি আগামীকাল থাকছে বুদ্ধ পূর্ণিমা। সুতরাং জ্যোতিবিজ্ঞান এবং জ্যোতিষবিদ্যা দুই দিক থেকেই আগামীকালের দিনটির গুরুত্ত্ব অপরিসীম।

Loading...

Amazon

https://www.amazon.in/Redmi-8A-Dual-Blue-Storage/dp/B07WPVLKPW/ref=sr_1_1?crid=23HR3ULVWSF0N&dchild=1&keywords=mobile+under+10000&qid=1597050765&sprefix=mobile%2Caps%2C895&sr=8-1

Pages