ওঁর উচিত দিলীপ ঘোষকে সরিয়ে সেই আসনে বসা : পার্থ চট্টোপাধ্যায় - আজ খবর । দেখছি যা লিখছি তাই । ডিজিটাল মিডিয়ায় অন্যতম শক্তিশালী সংবাদ মাধ্যম

Sonar Tori


ওঁর উচিত দিলীপ ঘোষকে সরিয়ে সেই আসনে বসা : পার্থ চট্টোপাধ্যায়

Share This


আজ খবর (বাংলা), কলকাতা, পশ্চিমবঙ্গ, ২৬/১২/২০২০ :  আজ সাংবাদিকদের মুখোমুখি হয়ে রাজ্যের শিক্ষামন্ত্রী পার্থ চট্টোপাধ্যায় রাজ্যপাল এবং বিজেপির রাজ্য সভাপতি দিলীপ ঘোষকে রাজনৈতিক আক্রমন করলেন।

প্রথমে পার্থবাবু নন্দীগ্রাম প্রসঙ্গ টেনে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের অবদান সম্বন্ধে কিছু  প্রশ্নের উত্তর দেন এবং মনে করিয়ে দেন টানা ২৬ দিন অনশন করে কিভাবে মমতা সেই সময় আন্দোলন করেছিলেন। তিনি বলেন, "যারা বেশি কথা বলে, তখনই  সন্দেহ হয় যে সে কতটা কাজ করেছে, কিন্তু মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় কথা কম বলে দিনের পর দিন মানুষের জন্যে কাজ করে চলেছেন।"

এরপর পার্থবাবু রাজ্যের রাজ্যপাল জগদীপ ধনকরকে নাম না করে একহাত নেন। তিনি বলেন,  "ওনার আর রাজ্যপাল   নয়, ওনার উচিত বিজেপির রাজ্য সভাপতির আসন থেকে দিলীপ ঘোষকে সরিয়ে দিয়ে সেই আসনে বসা এবং  বিজেপি নেতাদের মত আচরণ করা.। অত বড় বাড়িতেও থাকবেন আবার বিজেপি নেতাদের মত আচরণও করে যাবেন!  একসাথে দুটোই করা যায় না।"

পার্থবাবু বিজেপির রাজ্য সভাপতি দিলীপ ঘোষকে আক্রমন করে বলেন, "অমর্ত্য সেন সম্বন্ধে কথা বলার মত প্রজ্ঞা বুদ্ধি  দিলীপ ঘোষের নেই।  সব কিছুর একটা লেভেল থাকে !  যারা রবীন্দ্রনাথের জন্মস্থান ভুল বলে, তারাই আবার রবীন্দ্রনাথের  ভাবনা নিয়ে বেঁচে থাকতে চায়।" আজ তৃণমূল ভবনে সাংবাদিকদের মুখোমুখিহয়ে পার্শ্ব শিক্ষকদের অবস্থান বিক্ষোভ নিয়ে পার্থবাবু বলেন, "ওঁরা শুধু শুধুই  বসে বিক্ষোভ দেখাচ্ছেন. আমি আগেই বলেছিলাম, ধাপে ধাপে রাজ্য সরকার ওঁদের জন্যে সবরকম সুব্যবস্থাই করছে, তার জন্যে এভাবে বিক্ষোভ দেখানোর দরকার নেই। ওঁদের এই বিক্ষোভের জেরে পড়ুয়াদের পড়াশুনার  ক্ষতি হচ্ছে। ওঁদেরকেও সরকারের বাস্তব সমস্যার দিকটা বুঝতে হবে।" (দেখুন ভিডিও)


Loading...

Amazon

https://www.amazon.in/Redmi-8A-Dual-Blue-Storage/dp/B07WPVLKPW/ref=sr_1_1?crid=23HR3ULVWSF0N&dchild=1&keywords=mobile+under+10000&qid=1597050765&sprefix=mobile%2Caps%2C895&sr=8-1

Pages