দেশে বন্যা পরিস্থিতি নিয়ে কেন্দ্র সরকারের নতুন পরামর্শ - আজ খবর । দেখছি যা লিখছি তাই । ডিজিটাল মিডিয়ায় অন্যতম শক্তিশালী সংবাদ মাধ্যম

Sonar Tori


দেশে বন্যা পরিস্থিতি নিয়ে কেন্দ্র সরকারের নতুন পরামর্শ

Share This

দেশে বন্যা পরিস্থিতি নিয়ে কেন্দ্র সরকারের নতুন পরামর্শ


আজ খবর (বাংলা), নতুন দিল্লী, ভারত, ৩১/০৮/২০২০ :  দেশের বিভিন্ন প্রান্তে জল থৈ থৈ পরিস্থিতি চলছে. বিভিন্ন রাজ্যে বন্যা পরিস্থিতির অবস্থা হয়েছে। আজ বন্যা পরিস্থিতি  সরকার নতুন কিছু নবপরামর্শ ঘোষণা করেছে।

পশ্চিম মধ্যপ্রদেশের বিক্ষিপ্ত কিছু এলাকায় ভারী থেকে অতিভারী বৃষ্টির সম্ভাবনা। পূর্ব রাজস্থান, গুজরাট, পশ্চিমবঙ্গ লাগোয়া হিমালয়ের পাদদেশ ও সিকিমের কিছু কিছু এলাকায় বিক্ষিপ্তভাবে ভারী থেকে অতিভারী বৃষ্টির পূর্বাভাস রয়েছে। এছাড়াও, মধ্য-মহারাষ্ট্র, আসাম, কোঙ্কন ও গোয়ার বিক্ষিপ্তভাবে কিছু কিছু এলাকায় ভারী থেকে অতিভারী বৃষ্টির পূর্বাভাস ছিল। এই সমস্ত জায়গায় আজ সকালদিকে ভারী বৃষ্টির খবর মিলেছে।

বিহার, উত্তরপ্রদেশ, ওড়িশা, মহারাষ্ট্র, আসাম, গুজরাট, ঝাড়খণ্ড ও পশ্চিমবঙ্গের ২০টি স্থানে বন্যা পরিস্থিতির সৃষ্টি হয়েছে। এছাড়াও, বিহার, উত্তরপ্রদেশ, আসাম ও ওড়িশার ২৪টি কেন্দ্রে বিভিন্ন নদ-নদীর জল স্বাভাবিকের থেকে ওপরে বইছে। এর ফলে এই এলাকাগুলিতেও বন্যার পরিস্থিতি দেখা দিয়েছে। 

আজ গুজরাটের বিক্ষিপ্ত কিছু এলাকায় ভারী থেকে অতিভারী বৃষ্টির পূর্বাভাস ছিল। এছাড়াও, পশ্চিম-মধ্যপ্রদেশ ও উত্তর-কোঙ্কন এলাকায় ভারী থেকে অতিভারী বৃষ্টির পূর্বাভাস দেওয়া হয়। এই এলাকাগুলিতে ৩১ তারিখের পর ধীরে ধীরে বৃষ্টির দাপট কমবে। তবে, ১ থেকে ৩ সেপ্টেম্বর পর্যন্ত উত্তর-পশ্চিম ভারত ও হিমালয়ের পশ্চিম এলাকায় বৃষ্টির দাপট বাড়বে। বিভিন্ন রাজ্যে প্রবল বৃষ্টির দরুণ একাধিক নদ-নদীর জল স্বাভাবিকের তুলনায় ওপর দিয়ে বইছে। তবে, আগামী ৪৮ ঘন্টায় মধ্যপ্রদেশ ও মহারাষ্ট্রে বৃষ্টির দাপট হ্রাস পাওয়ার ফলে বন্যা পরিস্থিতিতে তুলনামূলক উন্নতি হবে।

উক্ত রাজ্যগুলির সমস্ত জেলায় আগামী তিন থেকে চারদিন পরিস্থিতির ওপর তীক্ষ্ণ নজর রাখা হবে। এই রাজ্যগুলিকে জলাধারগুলির পরিস্থিতির ওপর নিবিড় নজর রাখার পরামর্শ দেওয়া হয়েছে। সেইসঙ্গে নিচু এলাকাগুলিকে আগাম সতর্কীত করা হয়েছে। রেল লাইন, সড়কপথ এবং সেতুগুলির ওপর সর্বদাই নজর রাখা হচ্ছে যাতে যে কোনও রকমের অযাচিত দুর্ঘটনা এড়ানো যায়। যে সমস্ত এলাকায় রেল লাইন বন্যার জলে ডুবে রয়েছে, সেখানেও নজরদারি বাড়ানো হয়েছে। যে সমস্ত জেলায় কোভিড১-১৯ পরিস্থিতির জন্য ত্রাণ শিবির রয়েছে, সেখানকার জেলা প্রশাসনগুলিকে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে রাখতে প্রয়োজন সাপেক্ষে সবরকম ব্যবস্থা গ্রহণের নির্দেশ দেওয়া হয়েছে।

 

Loading...

Amazon

https://www.amazon.in/Redmi-8A-Dual-Blue-Storage/dp/B07WPVLKPW/ref=sr_1_1?crid=23HR3ULVWSF0N&dchild=1&keywords=mobile+under+10000&qid=1597050765&sprefix=mobile%2Caps%2C895&sr=8-1

Pages