করোনা প্রতিরোধী গ্লাভস আবিস্কার করলেন কল্যাণীর বিজ্ঞানী - আজ খবর । দেখছি যা লিখছি তাই । ডিজিটাল মিডিয়ায় অন্যতম শক্তিশালী সংবাদ মাধ্যম

Sonar Tori


করোনা প্রতিরোধী গ্লাভস আবিস্কার করলেন কল্যাণীর বিজ্ঞানী

Share This
অফবিট

আজ খবর(বাংলা), কল্যাণী, পশ্চিমবঙ্গ, ০৬/০৫/২০২০ :   গোটা বিশ্ব জুড়ে চলা এই গভীর  সংকটে বিজ্ঞানীরা আপ্রাণ চেষ্টা চালাচ্ছেন করোনা ভাইরাসকে রোখার জন্য কোন উপায় বের করতে। আমাদের দেশ ভারতও সেই প্রয়াসে পিছিয়ে নেই।
বিশ্বের তাবড় তাবড় চিকিৎসা বিজ্ঞানীরা যখন কোভিড-১৯ নিয়ন্ত্রণ, প্রতিহত বা নির্মূল করার লক্ষ্যে রাত দিন পরিশ্রম করে চলেছেন তখন একই উদ্দেশ্যে ছোট ছোট মফঃস্বল শহরের কিছু বিজ্ঞানী বড় কিছু আবিষ্কারের লক্ষে নিরন্তর প্রয়াস চালাচ্ছেন। এমনই একজন হলেন কল্যাণীর জে আই এস কলেজ অফ ইঞ্জিনিয়ারিং এর অধ্যাপক ডঃ বিশ্বরূপ নিয়োগী আর তার  ছাত্র শঙ্খ দে। এই দুজনে মিলে তৈরি করেছেন করোনা প্রতিরোধী দস্তানা (করোনা প্রোটেক্টিভ গ্লাভস)। ডঃ নিয়োগী  প্রথম এই ধরনের দস্তানা বানানোর পরিকল্পনা করেন । এই ধরনের গ্লাভস তৈরির ভাবনা এলো কোথা থেকে? “যত দিন যাচ্ছে আমাদের চিকিৎসার জন্য প্রয়োজনীয় জিনিসপত্রের অভাব দেখা দিচ্ছে, চিকিৎসক ও চিকিৎসা কর্মীরা নিজেরাও করোনা রোগীদের থেকে আক্রান্ত হচ্ছেন ফলে চিকিৎসা ক্ষেত্রে দেখা দিচ্ছে সংকট আর অনিশ্চয়তা। এই সমস্ত চিকিৎসক ও চিকিৎসা কর্মীদের সুরক্ষা প্রদান করা একান্ত প্রয়োজন। আর ঠিক এই কারণেই এই নতুন ধরেন গ্লাভস আর পি পি ই তৈরির চিন্তা মাথায় আসে” জানালেন ডঃ নিয়োগী। 
হু এর বক্তব্য  অনুযায়ী অ্যালকোহলের সাহায্যে করোনার মোকাবিলা করা যায় কারণ সেটি ভাইরাসের বাইরের লিপিড আবরণটি ভেঙ্গে দিয়ে সেটিকে মেরে ফেলে। হু দুটি পদ্ধতিতে যৌগ তৈরির নিদান দিয়েছে। প্রথমটি হল ৮০% ইথানল, ১.৪৫% গ্লিসেরল এবং ০.১২৫% হাইড্রোজেন পার অক্সাইড আর দ্বিতীয়টি হল ৭৫% ২-প্রোপানল ১.৪৫% গ্লিসেরল এবং ০.১২৫% হাইড্রোজেন পার অক্সাইড। এই যৌগ কে হাতিয়ার করেই গ্লাভস ও পি পি ই’র এই নতুন মডিউলের নক্সা তৈরি করা হয়েছে। নয়া পদ্ধতিতে গ্লাভস ও পি পি ই’র উপরি ভাগ প্রতি ২০ মিনিট অন্তর স্বয়ংক্রিয় ভাবে তরল স্প্রে করে স্যানিটাইজ করা যাবে। গ্লাভসের মধ্যে বসান একটা পাত্র থেকে এই তরল যন্ত্রের সাহাজ্যে স্প্রে করা হবে। প্রয়োজন অনুযায়ী সময়সীমা বাড়ানো কমানো যাবে। সব সমেত গ্লাভসের ওজন ৬০-৬৫ গ্রাম। যা ব্যবহারকারীদের জন্য খুব একটা ভারী নয়।  
গ্লাভসের ক্ষেত্রে একটি ৬০ মিলি লিটারের পাত্রে আর পি পি ই গাউনের ক্ষেত্রে ১.২ লিটারের পাত্রে ওই রাসয়নিক তরলটি রাখা থাকে। বিশেষ পদ্ধতিতে তৈরি একটি হাল্কা পাম্পের সাহায্যে রাসায়নিকটিকে উপরিভাগে নির্দিষ্ট সময় অন্তর স্প্রে করা হয় (প্রতিবার ৫ মিলি লিটার) এর ফলে গ্লাভস হয় জীবাণুমুক্ত। শুধু গ্লাভস নয় এই একই প্রক্রিয়া কাজে লাগিয়ে দরজা জানলার নব, সিঁড়ির রেলিং, এটিএম যন্ত্রের বোতাম, লিফটের সুইচ সবই জীবাণুমুক্ত করা যায়। একটি নিয়ন্ত্রক এককের মাধ্যমে দুটি স্প্রের মধ্যবর্তী কালীন সময় স্থির করা হয়।
পি পি ই’র ক্ষেত্রে গায়ে পড়ে থাকা অংশের জন্য একটি ১.২ লিটারের পাত্র এবং নিচের অংশ অর্থাৎ পায়ে পড়ার অংশের জন্য আরেকটি ১.২ লিটারের পাত্র থাকে। পি পি ই’র গোটা টা জুড়েই সুচারু ভাবে ছড়িয়ে থাকে ছোট ছোট ছিদ্রবিশিষ্ট পাইপ। ২০ মিনিট অন্তর অন্তর ৩০ মিলি লিটার অ্যালকোহল পি পি ই’র উপরিভাগে ছড়িয়ে পড়ে জীবাণু মুক্তি ঘটাবে। 
দরজা জানলার নব, সিঁড়ির রেলিং, এটিএম যন্ত্রের বোতাম, লিফটের সুইচ ইত্যাদির জন্য খুব শীঘ্রই বাজারে আসবে ৬০ মিলি লিটার অ্যালকোহল যৌগ পাত্র সমন্বিত নয়া যন্ত্রটি।
অধ্যাপক ডঃ নিয়োগী কলেজের ইনভেশন কাউন্সিলের কনভেনর। তাঁর ইচ্ছা লকডাউনের পর একটি স্টার্ট আপ উৎপাদন ইউনিট খোলা। কোভিড-১৯ কে রোখার লক্ষে এই কাজগুলি এখন করে যেতে চান তিনি।
 

Loading...

Amazon

https://www.amazon.in/Redmi-8A-Dual-Blue-Storage/dp/B07WPVLKPW/ref=sr_1_1?crid=23HR3ULVWSF0N&dchild=1&keywords=mobile+under+10000&qid=1597050765&sprefix=mobile%2Caps%2C895&sr=8-1

Pages